বাংলাদেশের কাছে হার ভারতের ! মানতে পারছেন না যুবরাজ

অনলাইন ডেস্ক: যুবরাজ ছিলেন চ্যাম্পিয়ন খেলোয়াড়। ছিলেন দুর্দান্ত এক ফিনিশার। ভারতের অনেক কঠিন কঠিন মুহূর্তে হাল ধরেছেন, জয় এনে দিয়েছেন। ২০১১ বিশ্বকাপজয়ী খেলোয়াড়ই নন শুধু, ছিলেন টুর্নামেন্ট সেরা খেলোয়াড়ও। সেই যুবরাজ সিং দিল্লিতে বাংলাদেশের কাছে ভারতের হার কোনোভাবেই মানতে পারছেন না।

বাংলাদেশের কাছে হারের ক্ষোভ তিনি ঝেড়েছেন ভারতীয় নির্বাচকদের ওপর। তার মতে, দল নির্বাচন ঠিকমত হয়নি বলেই আজ ভারতের এমন বিপর্যয়। ঘরের মাঠেও বাংলাদেশের কাছে হারতে হচ্ছে। যে কারণে নির্বাচকের কঠোর সমালোচনা করলেন তিনি। বললেন, এই নির্বাচকদের বাদ দিয়ে আরও ভালোমানের নির্বাচক আনা প্রয়োজন। তার মতে, ‘বর্তমান নির্বাচক কমিটির আধুনিক ক্রিকেট নিয়ে চিন্তাভাবনা যথেষ্ট উন্নত মানের নয়।

বাংলাদেশের বিপক্ষে ভারতের ম্যাচের পর মুম্বাইয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে যুবরাজ বলেন, ‘আমাদের অবশ্যই ভাল নির্বাচক দরকার। বুঝি, নির্বাচকদের কাজটা মোটেও সহজ নয়। যখনই ১৫ জনকে বেছে নেওয়া হবে, কথা হবে অন্য ১৫ জনকে নিয়ে যারা সুযোগ পেল না। কাজটা কঠিন; কিন্তু আধুনিক ক্রিকেটের বিচারে ওদের চিন্তাভাবনাও যথেষ্ট উন্নত মানের নয়।

ভারতীয় দলের নির্বাচকদের নিয়ে আগে আগে থেকেই তুমুল সমালোচনা চলছিল। এম এস কে প্রাসাদের নেতৃত্বাধীন কমিটিতে খুব বেশি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলা সাবেক ক্রিকেটার নেই। এমএসকে প্রাসাদই তো খেলেছেন সাকুল্যে ৬টি টেস্ট এবং ১৭টি ওয়ানডে ম্যাচ।

এত কম আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলা ক্রিকেটারকে প্রধান নির্বাচক করা নিয়ে বারবারেই প্রশ্ন উঠেছে ভারতীয় দলে। এ নিয়ে যুবরাজ বলেন, ‘আমি সব সময় ক্রিকেটারদের পাশে দাঁড়ানোয় বিশ্বাসী। কঠিন সময়ে খেলোয়াড়দের সম্পর্কে নেতিবাচক কথা বলাটা মোটেও কাম্য নয়। তাতে সেই ব্যক্তির চরিত্রই প্রকাশ পায়। খারাপ সময়ে সবাই খারাপই বলে। তবে অবশ্যই আরও ভাল জাতীয় নির্বাচক দরকার।

বাংলাদেশের বিপক্ষে অভিষেক হওয়া শিভাম দুবেকে বলা হচ্ছে ‘নতুন যুবরাজ’। এ সম্পর্কে যুবরাজ সিং বলেন, ‘তাকে আগে ক্যারিয়ারটা শুরু করতে দিন। তারপর তুলনা করবেন। তবে তার মধ্যে প্রতিভা আছে।

ভারতীয়দের ব্যাটিং নিয়ে যারপরনাই হতাশ যুবরাজ। তিনি বলেন, ‘ব্যাটিংয়ে কোথায় সমস্যা হচ্ছে, সেটা খুঁজে বের করতে হবে। বিক্রম রাঠৌর এখন ব্যাটিং কোচ, জানি না সেটা সে করতে পারবে কি না। সে (রাঠৌর) কখনও টি-টোয়েন্টি খেলেনি। ওকে সময় দিতে হবে। তারপরে না হয় ফলের আশা করা যাবে।

বাংলাদেশের বিপক্ষে সঠিকভাবে ডিআরেএস নিতে না পারার কারণে তুমুল সমালোচনা হচ্ছে রিশাভ পান্তকে নিয়ে। তবে তার পাশে দাঁড়ালেন যুবরাজ, ‘আমি বলব না রিশাভ বিভ্রান্ত; কিন্তু সে নিশ্চিত নয়, বড় শটের জন্য যাবে নাকি খুচরো রান নিয়ে স্ট্রাইক ঘোরানোয় নজর দেবে। দিল্লিতে বল-প্রতি-রানের হিসাবে এগোচ্ছিল সে। এরপরই আউট হয়ে গেল। রিশাভ এমন একজন ব্যাটসম্যান যে, সময় নিয়ে হাত খুলতে পারে। আবার শুরু থেকেও ঝড় তুলতে পারে।

নিউজ২৪.ওয়েব/সংবাদদাতা/ নাদিম

newsthree

Read Previous

সুনামগঞ্জে গলায় ফাঁস দিলো কিশোরী বাড়ির আঙ্গিনায়

Read Next

পেঁয়াজের কেজি ৪৫ টাকা পাতাসহ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *