ক্যাসিনো সম্রাটের বিরুদ্ধে অস্ত্র ও মাদক আইনে দুই মামলা

অনলাইন ডেস্ক: ক্যাসিনো সম্রাট যুবলীগের বহিষ্কৃত নেতা ইসমাইল চৌধুরী সম্রাটের বিরুদ্ধে সোমবার (০৭ অক্টোবর) অস্ত্র ও মাদক আইনে দুটি মামলা করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। এছাড়া তার সহযোগী ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের সহ-সভাপতি এনামুল হক আরমানের বিরুদ্ধে মাদক আইনে পৃথক মামলা দায়ের হয়েছে। সোমবার বিকাল ৪ টার দিকে র‌্যাব-১ এর উপ-সহকারী পরিচালক সুবেদার নায়েক আব্দুল খালেক বাদী হয়ে রমনা মডেল থানায় মামলা দুটি করেন।

গত ৫ অক্টোবর শনিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে সঙ্গীয় অফিসার ও ফোর্সসহ বিমানবন্দর এলাকায় ডিউটি করাকালীন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারি, চলমান ক্যাসিনো বিরোধী অভিযানের অন্যতম পলাতক আসামি ক্যাসিনো সম্রাট গ্রেপ্তারের ভয়ে কুমিল্লার সীমান্ত দিয়ে পার্শবর্তী দেশ ভারতে যাওয়ার জন্য কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে অবস্থান করছিলেন।

এই সংবাদ পাওয়ার পর উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানিয়ে র‍্যাব সদর দপ্তরের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারওয়ার আলম ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নিজাম উদ্দিন আহম্মদের নেতৃত্বে কুমিল্লার উদ্দেশ্যে সড়ক পথে রওনা হই। ৬ অক্টোবর রবিবার ভোর ৫টার দিকে কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম থানার আলকরা ইউনিয়নের কুঞ্জুশ্রীপুর গ্রামের মনির চৌধুরীর বাড়িতে ইসমাইল হোসেন চৌধুরী সম্রাটকে তার সহযোগী এনামুল হক আরমান (৫২) কে আটক করতে সক্ষম হই।

এসময় এনামুল হক আরমানকে মাদক সেবনরত অবস্থায় পেয়ে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নিজাম উদ্দীন আহম্মেদ মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে ৬ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন। এসময় সম্রাটকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তিনি তার কার্যালয় ভূঁইয়া ম্যানশনে অবৈধ অস্ত্র, মাদকদ্রব্য ও সহযোগীরা আছে বলে জানায়। তখন তাকে নিয়ে কুমিল্লা থেকে রওনা হয়ে কাকরাইলের ভূঁইয়া ম্যানশনের চতুর্থ তলায় পৌঁছে তার ফ্ল্যাটের উত্তর দিকের পশ্চিম পাশে বেডরুমের বিছানার নিচ থেকে একটি বিদেশী পিস্তল, পাঁচ রাউন্ড গুলি, একটি ম্যাগাজিন উদ্ধার করা হয়।

এছাড়া সম্রাটের দেখানো তথ্য মতে ওই ভবনের বিভিন্ন জায়গা থেকে ২টি ইলেকট্রিক শক মেশিন, ২টি লাঠি, ১৯ বোতল বিভিন্ন ব্রান্ডের বিদেশী মদ, ১১৬০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, চার প্যাকেট খেলার তাস উদ্ধার করে তা মামলার জব্দ তালিকায় যুক্ত করা হয়েছে। রমনা থানার ওসি কাজী মাইনুল ইসলাম বলেন, মামলা দুটি নথিভূক্ত হওয়ার পর আমরা আইনি প্রক্রিয়ায় ব্যবস্থা নেব।

এ সময় র‌্যাবের পক্ষ থেকে মামলার স্বপক্ষে আলামতও পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়। আমরা সেগুলো খতিয়ে দেখবো এবং আদালতে পেশ করবো।

নিউজ২৪.ওয়েব/ডেস্ক/মৌ দাস.

newsone

Read Previous

জিসান-খালেদ সম্রাটকে হত্যা করতেই ৫টি একে-২২ রাইফেল এনেছিল

Read Next

মুখ চেয়ে ধরায় আবরার কাঁদতেও পারেননি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *