না.গঞ্জে ফতুল্লা থেকে আটকরা নব্য জেএমবির সদস্য : মনিরুল ইসলাম

অনলাইন ডেস্ক: ফতুল্লার শিহারচরের তক্কার মাঠ এলাকার জঙ্গি আস্তানা থেকে আটকরা নব্য জেএমবির সদস্য বলে জানিয়েছেন পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের প্রধান মনিরুল ইসলাম। ঘটনাস্থল পরিদর্শন শেষে সোমবার (২৩ সেপ্টেম্বর) দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা জানান।

পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের প্রধান মনিরুল ইসলাম বলেন, এখান থেকে যারা আটক হয়েছে তারা মূলত নব্য জেএমবির সদস্য। অভিযোগের ভিত্তিতে জামাল উদ্দীন রফিককে ঢাকা থেকে আটক করা হয়। পরে জঙ্গি আস্তানা থেকে তার ভাই ও ভাবিকে আটক করা হয়। তারা এ বাড়িতে বসে দেশের জঙ্গিদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখতো। এ জঙ্গি আস্তানায় বোমা ও বিস্ফোরক রয়েছে। সেগুলো নিষ্ক্রিয় করতে বোম্ব ডিস্পোজাল ইউনিট কাজ করছে। এখানকার বোমা ও বিস্ফোরকের সঙ্গে সম্প্রতি ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় পাওয়া বোমা ও বিস্ফোরকের মিল রয়েছে।

মনিরুল ইসলাম আরও বলেন, যে বাড়িতে বোমা তৈরি করা হয় সেখানে আগে ৬টি টিনসেড রুমে ৬টি পরিবার থাকতো। প্রায় ৭ মাস আগে বাড়িতে বহুতল ভবন করার কথা বলে বাড়ির মালিকের ছেলে ভাড়াটিয়াদের সরিয়ে দেন। কিন্তু ভাড়াটিয়াদের সরিয়ে দেয়ার ৭ মাসেও কোনো ভবন করা হয়নি। এ বাড়িতে জঙ্গি সদস্যদের প্রতিনিয়ত আনাগোনা ছিল। এখানে বসে বোমা তৈরি করে দেশের বিভিন্ন এলাকার জঙ্গিদের সঙ্গে দেয়া হতো।

এ সময় পুলিশের ঢাকা রেঞ্জের ডিআইজি হাবিবুর রহমান, ঢাকা রেঞ্জের অতিরিক্ত ডিআইজি আসাদুজ্জামানসহ পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, সোমবার ভোররাত থেকে কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের সদস্যরা তক্কার মাঠ এলাকার জয়নাল আবেদীনের ওই বাড়িটি ঘিরে রাখে। এ সময় ওই বাড়ি থেকে তিনজনকে আটক করা হয়। তারা হলেন- বাড়ির মালিক ব্যাংক কর্মকর্তা জয়নাল আবেদীনের দুই ছেলে ফরিদ উদ্দীন (২৭) ও জামাল উদ্দীন (২৩) এবং ফরিদ উদ্দীনের স্ত্রী জান্নাতুল ফোয়ারা অনু (২৭)।

সোমবার (২৩ সেপ্টেম্বর) বেলা ১১টার দিকে ঢাকা থেকে বোম্ব ডিস্পোজাল ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছার পর বাড়িটিতে অভিযান শুরু হয়েছে। ওই বাড়িতে থাকা বোমা ও বিস্ফোরক নিষ্ক্রিয় করতে কাজ করছে বোম্ব ডিস্পোজাল ইউনিট।

নিউজ২৪.ওয়েব/সংবাদদাতা/ নাদিম

newstwo

Read Previous

কোনো প্রকার আপস নেই, সরকার আটঘাট বেঁধেই নেমেছে : ওবায়দুল কাদের

Read Next

১৮০ কোটি টাকা আয় জুয়া থেকে হুইপের , পুলিশ পরিদর্শকের দাবি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *